ব্রাজিলের প্রাক্তন ফুটবল প্রধানের ৪ বছরের জেল

ব্রাজিলের প্রাক্তন ফুটবল প্রধানের ৪ বছরের জেল

ব্রাজিলের প্রাক্তন ফুটবল প্রধান হোসে মারিয়া মারিনের বিরুদ্ধে দুর্নীতির অভিযোগ প্রমাণিত হয়েছে। তাকে চার বছরের জেল দিয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের একটি আদালত। পাশাপাশি তার ৩.৩৪ মিলিয়ন ডলারের সম্পদ বাজেয়াপ্ত ও ১.২ মিলিয়ন ডলার জরিমানার রায় দিয়েছেন ব্রুকলিন ডিস্ট্রিক কোর্টের বিচারপতি পামেলা চেন। প্রসঙ্গত, দুর্নীতির অভিযোগ মারিয়া মারিন গত ১৩ মাস ধরে জেলখানায় রয়েছেন।

এই রায় নিয়ে যুক্তরাষ্টের এফবিআইয়ের সহকারী পরিচালক উইলয়াম সোয়েনি বলেন, ‘আজ মারিনের রায়টি একটি পদক্ষেপ মাত্র। দুর্নীতগ্রস্ত এইসব অফিসিয়ালদের অভিযোগ দীর্ঘ মেয়াদী তদন্তের পর প্রমানীত হচ্ছে। ফুটবলে অসধুপায় অবলম্বন করে যারা নিজেদের ব্যাংক অ্যাকাউন্ট ভারী করেছে এফবিআই ও আমাদের আইনপ্রয়োগকারী সহযোগীরা সেগুলো তদন্ত করার চেষ্টা করছে।

অভিযোগ রয়েছে, দায়িত্বকালে সম্প্রচার চুক্তি পাইয়ে দেওয়ার বিনিময়ে বিভিন্ন ক্রীড়া বিপণন প্রতিষ্ঠানের কাছ থেকে ঘুষ নিয়েছন মারিয়া মারিন। তেমন একটি টুর্নামেন্ট ছিল কোপা আমেরিকা। ফিফায় চলমান দুর্নীতির তদন্তের অংশ হিসেবে প্রথম অভিযুক্ত হিসেবে দোষী সাব্যস্ত হলেন হোসে মারিন।

উল্লেখ্য, ব্রাজিল ফুটবলের এ প্রাক্তন কর্তা গ্রেফতার হন ২০১৫ সালের মে মাসে। ঘুষ নেওয়ার কারণে জুরিখের একটি হোটেল থেকে মারিনসহ মোট ৭ ফিফা কর্মকর্তাকে গ্রেফতার করা হয়।